লাভজনক ছোট পাঁচ ব্যবসার আইডিয়া

ক্যারিয়ার ডেস্ক:: আপনিও কি অল্প পুঁজিতে লাভজনক ব্যবসা করতে চাচ্ছেন? যদি হে, তাহলে এইটা মনে রাখুন যে কম টাকায় ব্যবসা করার অনেক উপায় বা আইডিয়া আমাদের কাছে রয়েছে। আজ অনেকেই এই ক্ষুদ্র ব্যবসার ধারণা নিয়ে বা করে নিজের জীবন চলাচ্ছেন। ছোট ব্যবসা বা ক্ষুদ্র বিজনেস আমরা সেগুলিকে বলি যে ব্যবসাতে অনেক কম টাকা বা পুঁজির প্রয়োজন হয়।

কিন্তু, এইটা অবশই মনে রাখবেন যে, কম টাকায় আরম্ভ করা ছোট ব্যবসা সবসময় ছোট বা ক্ষুদ্র নাও থাকতে পারে। আপনার ক্ষুদ্র ব্যবসা একদিন বড় ব্যবসা হয়ে উঠতেই পারে। কিন্তু তার জন্য আপনার নিজের কাজের ওপর মন, কাজ করার ইচ্চা এবং ধর্য্য শক্তির প্রয়োজন হবে। তাহলেই, আপনি নিজের ক্ষুদ্র বিজনেস কে বড় করে নিতে পারবেন। নিজের একটি ব্যবসা আরম্ভ করাটা সবাইর একটা স্বপ্ন বা ইচ্ছা।

কিন্তু, বেশিরভাগ লোকেরা ব্যবসার স্বপ্নটি পুরো করতে পারেনা কম টাকার সমস্যার জন্য। আর তাই, আমি আপনাদের ১০ টি এমন ক্ষুদ্র ব্যবসার বিষয়ে বলবো যেগুলি আপনি অনেক কম পুঁজিতে আরম্ভ করতে পারবেন। আপনার নিজের একটি business এর স্বপ্ন এখন আর স্বপ্ন হয়ে থাকবেনা। আপনার হাতে যতটা টাকা আছে তা দিয়েই আপনি একটি ব্যবসা শুরু করতে পারবেন। কারণ, কম টাকায় কি ব্যবসা করা যায়, কি বেশি লাভের ব্যবসা বা কোনটা ভালো ব্যবসা তার ১০ টি ধারণা বা আইডিয়া আমি নিচে বলবো।

১. মোবাইল রিচার্জের (Recharge) দোকান: আপনি যদি অনেক কম টাকায় ব্যবসা করার কথা ভাবছেন তাহলে একটি ছোট্ট মোবাইল রিচার্জ দোকান শুরু করতে পারেন। আজকাল, মানুষের হাথে হাথে মোবাইল আছে এবং তারা দোকানে গিয়ে রিচার্জ অবশই করবে। তাই, আপনি এই business টি অনেক কম পুঁজিতে এবং অনেক ছোট দোকান নিয়ে আরম্ভ করতে পারবেন। আপনার মোবাইল রিচার্জের দোকান দিতে কেবল ১০ থেকে ১৫ হাজার খরচ হতে পারে।

২. Fast food truck / stall: আজকাল লোকেরা বাইরে tasty বা স্বাদের খাবার (fast food) খেয়ে অনেক ভালো বাসে। তাই, এই fast food এর ব্যবসা আজকাল অনেকটাই লাভজনক এবং কম টাকা দিয়ে আপনি আরম্ভ করতে পারবেন। নিজের stall বা দোকানে আপনি অনেক রকমের মোমো, চাওমিনে, চপ, পাও ভাজি, ধোসা, ঘুগনি, কফি আদি খাবার লোকেদের খায়িয়ে টাকা আয় করতে পারবেন।

এই ব্যবসা আপনি অনেক কম টাকা দিয়ে start করতে পারবেন। আপনার খাবার বানানোর কিছু জিনিস লাগবে এবং একটি কারিগর যে খাবার বানাবে। তারপর একটি দোকান বা truck (খাবারের গাড়ি) যেটা দিয়ে আপনি জাগায় জাগায় গিয়ে লোকেদের খাবার খাওয়াতে পারবেন।

৩. YouTube চ্যানেল দ্বারা অনলাইন business: যদি আপনি অনলাইন ব্যবসা করতে চাচ্ছেন তাহলে YouTube চ্যানেল বানিয়ে তাকে একটি ভালো business হিসেবে চলতে পারবেন।ব্লগের মতোই ইউটিউবে চ্যানেল বানিয়ে তাতে ভিডিও আপলোড করে আপনি ঘরে বোসে টাকা আয় করতে পারবেন। এই business এ আপনি কোনো পুঁজি না লাগিয়েই নামতে পারবেন।

বাস, আপনার নিজের ট্যালেন্ট এবং ভালো ভালো ভিডিও বানানোর যোগ্যতা থাকতে হবে। YouTube চ্যানেল বানিয়ে তাতে ভিডিও আপলোড করে লোকেরা লক্ষ লক্ষ টাকা আয় করছে। কিন্তু, মনে রাখবেন এই ব্যবসা থেকে টাকা আয় করার জন্য আপনার কিছু সময় দিতে লাগবে। আপনি যদি অল্প সময় দিতে পারেন, ভালো ভালো ভিডিও বানিয়ে নিজের চ্যানেলে আপলোড করতে পারেন তাহলে আপনার ইনকাম করার chance হয়ে উঠবে। আর, তার পর থেকে আপনি ভালো টাকা আয় করতে পারবেন। কিভাবে ইউটিউবে থেকে টাকা আয় করা যায় ।

৪. অনলাইন শপিং ওয়েবসাইট বানিয়ে ব্যবসা: আপনি এইটা তো জানেন যে আজকাল বেশিরভাগ লোকেরা অনলাইন ওয়েবসাইটে গিয়ে জিনিস কেনা কাটা করতে ভালো বাসে। কারণ, online shopping ওয়েবসাইটে কম খরচে ভালো জিনিস পাওয়া যায় এবং জিনিস লোকেরা করে বসেই পেয়ে যায়।এই ব্যবসা যদি আপনি ভালোকরে ধারেনিতে পারেন তাহলে আপনি খুব কম সময়ে অনেক ইনকাম করতে পারবেন।

তাই, আপি যদি কম খরচে লাভের ব্যবসা করতে চান, তাহলে অনলাইন shopping store বা shopping website বানাতে পারেন।শপিং ওয়েবসাইট বানাতে আপনার বেশি খরচ হবেনা। আপনি কোনো website developer কে দিয়ে ১০ হাজারে একটি শপিং স্টোর বানিয়ে নিতে পারবেন। তা ছাড়া, আপনি নিজেই WordPress এর মাধ্যমে একটি ফ্রি শপিং ওয়েবসাইট বানিয়ে নিতে পারবেন।

৫. ফুলের দোকানের business (flower shop): আজকাল সেই business তাড়াতাড়ি চোখে পড়ে বা তাড়াতাড়ি success হয় যেগুলি অনন্য (unique) এবং মার্কেটে খুব কম পরিমানে রয়েছে এবং যেগুলির চাহিদা (demand) অনেক বেশি। সেরকমই, ফুলের দোকানের ব্যবসা খুব কম লোকেরা করছেন এবং এই ব্যবসার চাহিদাও অনেক রয়েছে। তাই, আপনি অনেক রকমের ফুল গাছ এবং ফুল নিজের দোকানে রেখে সেগুলি বিক্রি করতে পারেন।

মানুষ বিয়ে, জন্মদিন বা যেকোনো উপলক্ষতে ফুল বা ফুল দিয়ে সাজানো ফুলের তোড়া দিয়ে অনেক ভালো বসেন। আর তাই, এই রকমের উপহার আজকাল অনেক জনপ্রিয়। আপনি, অনেক কম টাকা লাগিয়ে একটি flower shop খুলে তাতে অনেক রকমের ফুলের তোড়া বানিয়ে সেগুলি বিক্রি করতে পারেন। এই ব্যবসাটা অনেক কম লোকেরা করে আর তাই এর চাহিদা বেশি এবং এতে আপনি কম সময়ে success হতে পারবেন।

তথ্য সুত্র: http://www.uddoktarkhoje.com/

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *